সরি বললে’ন দীঘি!

শুরু থেকেই আলোচনায় দেলোয়ার জাহান ঝন্টু পরিচালিত ‘তুমি আছো তুমি নেই’ সিনেমাটি। দুইবার নায়ক বদল করে আসিফ ইমরোজ ও দীঘিকে নিয়ে সিনেমাটি শেষ করেন তিনি। ১২ মার্চ প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাচ্ছে ‘তুমি আছো তুমি নেই’। এরই মধ্যে বিপরীতমুখী অবস্থানে সিনেমাটির নির্মাতা ঝন্টু ও নায়িকা চরিত্রের অভিনেত্রী দীঘি।

৮ মার্চ প্রকাশিত এক ভিডিও সাক্ষাৎকারে দীঘির বিরুদ্ধে মানহানি মামলার হুমকি দিয়েছেন পরিচালক দেলোয়ার জাহান ঝন্টু। বলেছেন, ‘আজকে কালকের মধ্যে হাইকোর্ট থেকে ওর কাছে উকিল নোটিশ চলে যাবে। আমি ওকে ছাড়ব না।’

ঝন্টুর অভিযোগ, নায়িকা হয়েও দীঘি ‘তুমি আছো তুমি নেই’ সিনেমার সমালোচনা করেছেন।নির্মাতা ঝন্টুর হুমকির বিষয়ে জানতে মঙ্গলবার (৯ মার্চ) দুপুরে তার ব্যক্তিগত নাম্বারে একাধিকবার ফোন করে পাওয়া যায়নি তাকে। পরে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভয়েস ম্যাসেজ পাঠান এ অভিনেত্রী।

সেখানে তিনি বলেন, আমি আসলে বাইরে আছি, তাই ফোনটা রিসিভ করতে পারছি না। ঝন্টু আংকেল আমার ওপর কেন এতো রাগ করেছেন, সেটা আমি জানি না। আমি এমন কোন স্টেটমেন্ট বা মন্তব্য করিনি যে,

উনি আমার নামে মামলা করতে চাইবেন। উনি আমার গুরুজন। আমার কাছে অনেক সম্মানের একজন মানুষ। আমি যদি কোনোভাবে, কোনো কথায় উনাকে দুঃখ দিয়ে থাকে তাহলে আমি তাকে ‘সরি’ বলছি।

দীঘি আরো বলেন, আমি মনে করি না, আমি এরকম কিছু করেছি যে আমার বিরুদ্ধে উনি এভাবে বলবেন। উনি অনেক বড় মানুষ, গুণী মানুষ তাই আমি উনাকে ‘সরি’ বলে দিচ্ছি।

শিশুশিল্পী হিসেবে ঢাকাই সিনেমায় অভিষেক হয়েছিল দীঘির। কাজী হায়াৎ পরিচালিত ‘কাবুলীওয়ালা’ সিনেমায় অভিনয় করেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছিলেন তিনি। শিশুশিল্পী হিসেবে মোট ৩০টি সিনেমায় অভিনয় করেছেন দীঘি। মাঝে পড়াশোনার জন্য আট বছর বিরতি নিয়েছিলেন এ অভিনেত্রী।

বিরতি কাটিয়ে নায়িকা হিসেবে ফিরেছেন তিনি। অভিনয় করেছেন ‘টুঙ্গিপাড়ার মিয়া ভাই’ ও ‘তুমি আছো তুমি নেই’ সিনেমাতে। এছাড়া ‘বঙ্গবন্ধু’ বায়োপিক এবং ‘শেষ চিঠি’ ওয়েব ফিল্মে দেখা যাবে তাকে।

About অনলাইন ডেস্ক

View all posts by অনলাইন ডেস্ক →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *