ছাগল পালনে ‘ব্যয়’ কমিয়ে অধিক ‘লাভবান’ হওয়ার উপায়

ছাগল পালনে ব্যয় কমিয়ে অধিক লাভবান হওয়ার উপায় ছাগল পালনকারীদের জেনে রাখা দরকার। আমাদের দেশে বিশেষ করে গ্রামাঞ্চলে ব্যাপকহারে ছাগল পালন করা হয়ে থাকে। লাভের আশায় অনেকেই ছাগলের খামার গড়ে তুলেছেন। ছাগল পালনে লাভবান হওয়ার জন্য ব্যয় কমিয়ে আনতে হবে। আজ আমরা জেনে নিব ছাগল পালনে ব্যয় কমিয়ে অধিক লাভবান হওয়ার উপায় সম্পর্কে-






ছাগল পালনে ব্যয় কমিয়ে অধিক লাভবান হওয়ার উপায়ঃ
১। ছাগল পালনে ব্যয় কমিয়ে আনার জন্য কম মূল্যের তবে তুলনামূলক বেশি পুষ্টিগুণ সম্পন্ন খাদ্য কিনতে হবে। এসব খাদ্য দৈনিক ভাগ ভাগ করে ছাগলকে খাওয়াতে হবে। কেনা খাদ্য অল্প পরিমাণে প্রতিদিন খাওয়ালে খাদ্য খরচ কমে যাবে ও ছাগলের পুষ্টি চাহিদা পূরণ হবে।

২। ব্যয় কমানোর জন্য যতটা সম্ভব ছাগলকে ছেড়ে পালন করতে হবে। ছেড়ে পালন করলে ছাগল প্রাকৃতিক খাদ্য যেমন- ঘাস, লতা-পাতা খেয়ে বড় হবে। এতে যেমন ছাগল পালনে খাদ্য খরচ কম হবে তেমনি ছাগল সুস্থ থাকবে।

৩। ছাগল পালনে ব্যয় কমানোর জন্য কম খরচে পরিবেশবান্ধব বাসস্থান নির্মাণ করতে হবে। এতে ছাগল পালন ব্যবস্থাপনার ব্যয় কমে যাবে।






৪। ছাগলের খামার বা বাসস্থান নিয়মিতভাবে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন করতে হবে। এতে খামারের বা পালন করা ছাগলের রোগের আক্রমণ কমে যাবে এবং চিকিৎসা খরচও অনেক কম হবে।

৫। ছাগল পালনে দানাদার খাদ্যের পাশাপাশি বিশুদ্ধ পানি ও তরল খাদ্য উপাদান সরবরাহ করতে হবে। দানাদার কিংবা শুকনো খাদ্যের পাশাপাশি তরল খাদ্য খাওয়ালে ছাগলের খাদ্য চাহিদা পূরণ হবে ও খাদ্য খরচ কমে যাবে।

৬। ছাগল পালনের সময় খাদ্য খরচ কমানোর জন্য খামার বা বসতবাড়ির পতিত জমিতে ঘাস লাগাতে হবে। এতে খাদ্য খরচ কমিয়ে ছাগলের পালন ব্যয় কমানো সম্ভব হবে।

About অনলাইন ডেস্ক

View all posts by অনলাইন ডেস্ক →

Leave a Reply

Your email address will not be published.