১ জুলাই থেকে বন্ধ হয়ে যাবে ‘অবৈধ মোবাইল’,দেখে নিন ‘আপনার মোবাইল’ ‘বৈধ’ কি না!

বাংলাদেশে আগামী পহেলা জুলাই থেকে অবৈধ মোবাইল হ্যান্ডসেট আর ব্যবহার করা যাবে না।

এর আগে একাধিকবার বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন বিটিআরসি এই সময়সীমা নির্ধারণ করলেও সেটি কার্যকর করতে পারেনি।






তবে এবার এটি কার্যকর করার ক্ষেত্রে বদ্ধপরিকর বিটিআরসি।

বিটিআরসির অনুমোদন নিয়ে যেসব মোবাইল ফোন সেট আমদানি বা প্রস্তুত করা হয়নি সেগুলোই হচ্ছে অবৈধ।

বিটিআরসির স্পেকট্রাম ডিভিশনের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শহিদুল আলম বিবিসি বাংলাকে বলেন, আসছে পহেলা জুলাই থেকে বাংলাদেশের ভেতরে যেসব নতুন মোবাইল সেট ব্যবহার করা হবে সেগুলো অবশ্যই নিবন্ধিত হতে হবে।

মোবাইল ফোনসেটের বৈধতা যাচাই করার নিয়ম।






২০১৮ সাল থেকে মোবাইল ফোনের আইএমইআই দিয়ে একটি ডাটাবেস তৈরি করছে বিটিআরসি। এই ডাটাবেসে যদি কোন মোবাইল ফোনসেটের তথ্য না থাকে তাহলে বিটিআরসি চাইলে সেটি বন্ধ করে দিতে পারে।

সেজন্য নতুন ফোন সেট কিনতে হলে অবশ্যই নিশ্চিত হতে হবে যে সেটি বৈধ কি না।

ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শহিদুল আলম বলেন, ন্যাশনাল ইকুইপমেন্ট আইডেন্টিটি রেজিস্টার (এনইআইআর) সিস্টেম ব্যবহার করে অবৈধ মোবাইল ফোন সেট শনাক্ত করা যাবে।

তবে এখন যারা অনিবন্ধিত মোবাইল ফোন ব্যবহার করছেন, সেগুলো ডাটাবেজে অন্তর্ভুক্ত করার সুযোগ দেয়া হবে।

কর্মকর্তারা বলছেন, নতুন যেসব মোবাইল ফোন সেট আসবে সেগুলো রেজিস্টার্ড হয়ে রেকর্ড থাকতে হবে।

About অনলাইন ডেস্ক

View all posts by অনলাইন ডেস্ক →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *