বাবাকে নিয়ে ‘১২০০ কিমি’ পাড়ি দেয়া ‘জ্যোতির’ দায়িত্ব নিলেন ‘প্রিয়াঙ্কা’

‘সাইকেল গার্ল’ জ্যোতি কুমারীর পড়াশোনার যাবতীয় দায়িত্ব নিয়েছেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। এর আগে গত লকডাউনের সময় জ্যোতি ভাইরাল হয়েছিলেন ব্যতিক্রমী এক কাজ করে। অসুস্থ বাবাকে সাইকেলে করে হরিয়ানা থেকে বিহার পর্যন্ত প্রায় ১২০০ কিলোমিটার পথ অতিক্রম করে ভাইরাল হন এই কিশোরী। ভারতীয় গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে এই তথ্য জানা যায়।






প্রতিবেদনে বলা হয়, বাবাকে নিয়ে নিরাপদে গ্রামে ফেরার পর তার অদম্য জেদের ছবি গত বছর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপক সাড়া ফেলেছিল। কিন্তু সেই ছবি দেখেও প্রশাসনের টনক নড়েনি। কোনো কোনো মহল থেকে যৎসামান্য সাহায্য পেলেও জ্যোতির পরিবার ছিল সেই অন্ধকারে।

জানা যায়, সম্প্রতি হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন জ্যোতির বাবা মোহন পাসোয়ান। এই অবস্থায় কীভাবে ভাই-বোন নিয়ে সংসার চলবে সেই আশঙ্কায় দিন কাটছিল জ্যোতির। জ্যোতির বাবার মৃত্যুর খবর পেয়ে স্থানীয় এক যুব কংগ্রেস নেতাকে তাদের বাড়িতে পাঠান প্রিয়াঙ্কা। কংগ্রেসের অন্যতম সাধারণ সম্পাদকের লিখিত শোকবার্তাসহ জ্যোতির বাড়িতে উপস্থিত হন সেই নেতা। এরপর ফোনে জ্যোতির সঙ্গে কথা বলেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধী।






তখন ফোনে জ্যোতিকে তিনি বলেন, কোনো চিন্তা না করে পড়াশুনা চালিয়ে যেতে। পরে সংবাদমাধ্যমকে জ্যোতি বলেন, ‘প্রিয়াঙ্কা দিদিকে বাড়ির সব কথা বলেছি। উনি বললেন- কোনো চিন্তা না করতে। উনি সবসময় পাশে আছেন। পরে দেখা করবেন বলেছেন।’

একপ্রকার নীরবেই অসহায় পরিবারটির পাশে থাকতে চেয়েছিলেন প্রিয়াঙ্কা। এর আগে একইভাবে দিল্লির নির্ভয়ার দায়িত্ব নিয়েছিলেন কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী। তখন তার এই উদ্যোগ বেশ প্রশংসিত হয়েছিল।

About অনলাইন ডেস্ক

View all posts by অনলাইন ডেস্ক →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *